এই ওয়েবসাইটে আর আপডেট হবে না। আমাদের নতুন সাইট Parstoday Bangla

ইরানের ইসলামি বিপ্লবী গার্ড বাহিনী বা আইআরজিসি'র সেকেন্ড-ইন-কমান্ড ব্রিগেডিয়ার জেনারেল হোসেইন সালামি বলেছেন, সাম্প্রতিক ভুল থেকে শিক্ষা না নিলে আমেরিকাকে চরম পরিণতি ভোগ করতে হবে। তার এ বক্তব্য ইরানের টেলিভিশনে প্রচারিত হয়েছে। 

 

পারস্য উপসাগরে ইরানের পানিসীমায় ঢোকার পর ১০ মার্কিন সেনাকে গ্রেফতারের কথা তুলে ধরে তিনি বলেন, আমেরিকাকে সাম্প্রতিক ঐতিহাসিক সত্য থেকে শিক্ষা নিতে হবে। তিনি আরো বলেন, মার্কিন সেনাদের গ্রেফতারের মধ্যদিয়ে প্রমাণ হয়েছে- আইআরজিসি শক্তিশালী নৌবাহিনী ও সশস্ত্র বাহিনী গঠন করেছে। এ বাহিনী ইরানের স্বার্থ এবং স্বাধীনতা রক্ষায় সক্ষম। 

 

ইরানের সামরিক মহড়া নিয়ে বিশ্বের বলদর্পী কোনো শক্তি বিধি-নিষেধ আরোপ করলে তেহরান তা মেনে নেবে না বলেও ঘোষণা করেন জেনারেল সালামি। তিনি বলেন, কৌশলগত পরিকল্পনার অংশ হিসেবে সামরিক মহড়া চালানোর আইনি অধিকার রয়েছে ইরানের। 

 

হরমুজ প্রণালী দিয়ে যাতায়াতকারী কেউ ভয় দেখানোর চেষ্টা করলে ইরান আন্তর্জাতিক আইনের আওতায় তা দৃঢ়ভাবে মোকাবেলা করবে বলেও ঘোষণা করেন তিনি।

 

 

হোসেইন সালামি  ইরানের রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনকে দেয়া সাক্ষাৎকারে এ প্রসঙ্গে বলেছেন, ১৯৮২ সালের সাগর বিষয়ক কনভেনশন অনুযায়ী মার্কিন সরকার ও তার আঞ্চলিক মিত্ররা হরমুজ প্রণালী ব্যবহারের পাশাপাশি যদি আমাদের হুমকি দিতে চায় তাহলে তাদের কোনও জাহাজ বা নৌকাও এ প্রণালী দিয়ে চলাচল করতে দেয়া হবে না। 


তিনি ব্যাখ্যা দিয়ে বলেন, এই কনভেনশনের আলোকে হরমুজ প্রণালীতে কারো চলাচল যদি আমাদের জন্য ক্ষতির কারণ হয় তাহলে তা প্রতিরোধ করা যায়। তাই হরমুজ প্রণালী ব্যবহারের পাশাপাশি আমেরিকা ও তার মিত্ররা যদি আমাদের হুমকি দেয় তাহলে চলাচলকে ক্ষতিবিহীন করার আইন অনুযায়ী আমরা তাদের কোনও জাহাজ ও নৌকাকেও এ প্রণালী দিয়ে চলাচল করতে দেব না। 

হরমুজ প্রণালী দিয়ে বিশ্বের প্রায় ৪০ শতাংশ জ্বালানী তেল পরিবহন করা হয়। #

 

মূসা রেজা/সিরাজুল ইসলাম/৪

 

 

 

 

ইরাকের দক্ষিণাঞ্চলে তাকফিরি সন্ত্রাসী গোষ্ঠী আইএসআইএল বা দায়েশের গুলিবর্ষণে মার্কিন নৌ কমান্ডো সিলের এক সদস্য নিহত হয়েছে বলে দাবি করেছেন মার্কিন প্রতিরক্ষামন্ত্রী অ্যাশ্টোন কার্টার। তিনি আরো দাবি করেন, কুর্দি পেশমার্গা বাহিনীতে উপদেষ্টার দায়িত্ব পালন করছিলেন নিহত সিল সদস্য চার্লি কেটিং। তবে স্বতন্ত্র কোনো মাধ্যম থেকে কার্টারের এ দাবি যাচাই করা যায় নি। 

 

ইরাকের কুর্দি অঞ্চলের রাজধানী আরবিলের কাছে শত্রুর গুলিতে এ সেনা নিহত হয়েছে বলে জানান কার্টার।কিন্তু সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশিত খবরে বলা হয়েছে, গতকাল (মঙ্গলবার) সকালে মসুলের উত্তর-ফ্রন্টলাইনে পেশমার্গা বাহিনীর প্রতিরক্ষা লাইন ভেদ করে তাকফিরিরা ঢুকে পড়লে ৩১ বছর বয়সি কেটিং নিহত হয়।

 

২০১৪ সালে মার্কিন নেতৃত্বাধীন জোট দায়েশ-বিরোধী কথিত অভিযান শুরুর পর থেকে এ নিয়ে ইরাকে আমেরিকার তিন সেনা নিহত হলো। মার্কিন জোটের কথিত অভিযান ও বিমান হামলা সত্ত্বেও ইরাকের দক্ষিণ ও পশ্চিমের বিশাল অঞ্চল এখনো দায়েশের নিয়ন্ত্রণ রয়েছে। দায়েশ-বিরোধী মার্কিন অভিযানের বাস্তব কোনো চিত্রও খুব একটা দেখা যায় না।#

 

মূসা রেজা/সিরাজুল ইসলাম/৪

 

রাশিয়া সফরে যাচ্ছেন ইরানের অন্যতম উপ পররাষ্ট্রমন্ত্রী হোসেইন আমির আব্দুল্লাহিয়ান। মধ্যপ্রাচ্য বিশেষ করে সিরিয়ার সর্বশেষ পরিস্থিতি নিয়ে রুশ কর্মকর্তাদের সঙ্গে আলোচনার জন্যে তিনি এ সফর করবেন। আজ (বুধবার) আরো পরে মস্কোর উদ্দেশ্যে রওয়ানা দেবেন তিনি।

 

সফরের সময় রুশ উপ পররাষ্ট্রমন্ত্রী মিখাইল বোগদানোভের সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন আব্দুল্লাহিয়ান। সিরিয়ার সর্বশেষ পরিস্থিতি এবং জেনেভায় জাতিসংঘের মধ্যস্থতায় শান্তি আলোচনা আবার শুরুর বিষয়কে আলোচনায় অগ্রাধিকার দেয়া হবে।

 

মস্কোয় রুশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই ল্যাভরভের সঙ্গে সিরিয়া বিষয়ক জাতিসংঘের বিশেষ দূত স্টাফান ডি মিসতুরার বৈঠকের পরদিন রাশিয়া সফরে যাচ্ছেন আব্দুল্লাহিয়ান।

 

সিরিয়ার কোনো কোনো অঞ্চলে সহিংসতা বেড়েছে এবং যুদ্ধবিরতি হুমকির মুখে পড়েছে। এ অবস্থায় যুদ্ধবিরতিকে পুরোপুরি কার্যকর করার ওপর গুরুত্বারোপ করেছেন জাতিসংঘ দূত। রুশ-মার্কিন মধ্যস্থতায় ২৭ ফেব্রুয়ারি থেকে সিরিয়ায় যুদ্ধবিরতি কার্যকর হয়েছে। বিবদমান পক্ষগুলোর মধ্যে আলোচনার অবকাশ তৈরির জন্য এটি কার্যকর করা হয়।#

 

মূসা রেজা/সিরাজুল ইসলাম/৪

 

ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র হোসেইন জাবেরি আনসারি বলেছেন, সৌদি আরব সঠিকভাবে দায়িত্ব পালন না করায় পবিত্র হজ অনুষ্ঠান বর্জনে তেহরান বাধ্য হতে পারে। ইরানের উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলীয় নগরী তাবরিজে এ কথা বলেছেন তিনি। 

 

আনসারি বলেন, পবিত্র হজের সঙ্গে রাজনৈতিক বিবাদের সম্পর্ক নেই বলে সৌদি আরব দাবি করে থাকে। কিন্তু সৌদি সরকারের কথা ও কাজে বিশাল ফারাক রয়েছে। স্বাগতিক সরকার হিসেবে যদি সৌদি আরব হাজিদের নিরাপত্তা এবং স্বাস্থ্য সংক্রান্ত দায়িত্ব পালন করে তবেই কেবল হজে যাওয়া যাবে অন্যথায় ইরানিরা পবিত্র হজে যেতে পারবেন না। 

 

গত বৃহস্পতিবার ইরানের হজ সংস্থার প্রধান সাঈদ ওহাদি বলেছেন, চলতি বছর ইরানি হজযাত্রীদের পাঠানোর বিষয়ে আলোচনায় এখন পর্যন্ত সাড়া দেয় নি সৌদি আরব। 

 

ইরানি হজযাত্রীদের নিরাপত্তা এবং সম্মান নিশ্চিত করতে সৌদি আরবকে ২০ দফা প্রস্তাব দেয়া হয়েছে বলেও উল্লেখ করেন তিনি। ওহাদি বলেন, ইরানি প্রস্তাবের পরিষ্কার জবাব দেয়ার কথা থাকলেও দীর্ঘ সময় পার হয়েছে কিন্তু এখনো কোনো জবাব দেয় নি সৌদি আরব।

 

গত বছর হজের সময় মিনায় কৃত্রিম ভিড়ের চাপে হাজার হাজার হজযাত্রীর মর্মান্তিক মৃত্যুর পরও নিরাপত্তা ইস্যুতে রিয়াদের নিষ্ক্রিয়তা দেখা যাচ্ছে। গত বছরের ঘটনাকে কেন্দ্র করে বিশ্বজুড়ে কঠোর সমালোচনার মুখে পড়ে সৌদি আরব। গত বছর মিনায় ৪৬০ ইরানি হাজিসহ প্রায় ৪,৭০০ হাজি নিহত হয়েছেন। তবে সৌদি আরব দাবি করে আসছে- মিনার ঘটনায় মারা গেছে ৭৭০ জন হাজি।#

 

মূসা রেজা/সিরাজুল ইসলাম/৪

 

ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লীগের (আইপিএল) ৩১তম ম্যাচে স্বাগতিক গুজরাট লায়ন্সের বিপক্ষে ৮ উইকেটের সহজ জয় পেয়েছে দিল্লি ডেয়ারডেভিলস। গত বুধবার আইপিএলের ২৩তম ম্যাচে এই গুজরাটের কাছেই মাত্র এক রানে হেরেছিল জহির খানের দল।